বাবার ভালোবাসার অধিকার চেয়ে আ’দালতে ২ বছরের শি’শু

0
180

বাবার ভালোবাসার অধিকার চেয়ে এবার আ’দালতে ২ বছরের শি’শু। আইনজীবীর সহকারী বাবা নিজেই আইন না মেনে করেছেন দ্বিতীয় বিয়ে। একমাত্র স’ন্তানের ভরণপোষণ চাইলে প্রথম স্ত্রী’কে করেন নি’র্যাতন। প্রতিকার চেয়ে মা’মলা করলে স্ত্রী ও স’ন্তানের ক্ষ’তি করার হু’মকিও দিচ্ছেন বাবা।

অবুঝ চোখে বাবার স্নেহের আকুতি। মাহিম আর তার মাকে ছেড়ে চলে গেছেন ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আ’দালতের আইনজীবীর সহকারী ক্লার্ক রায়হানুর ইসলাম। বাবাকে ফেরত পেতে মায়ের সাথে সোমবার (১৭ আগস্ট) আ’দালতে ২ বছরের স’ন্তান।

শি’শুটির মা মুক্তা জানান, ভালোবেসে পরিবারের অমতে বিয়ে করেন। বছর কয়েকের মধ্যেই পাল্টে যায় ভালোবাসার মানুষটি। জড়িয়ে পড়েন প’রকীয়ায়। প্রসূতি স্ত্রীর অনুমতি না নিয়েই করেন দ্বিতীয় বিয়ে।

মুক্তা বলেন, বাচ্চাটা পেটে থাকা অবস্থায় কত রকমের ও’ষুধ লাগে। এটা বলার পরেই আমাকে রেখে চলে গেছে।

স’ন্তানের ভরণপোষণের জন্য বার বার স্বা’মীর সহযোগিতা চেয়েছেন। উপায় না দেখে শি’শু স’ন্তানকে নিয়ে আ’দালতের শরণাপন্ন হয়েছেন। কিন্তু মা’মলার পর আরো বে’পরোয়া হয়ে ওঠে রায়হান। মা’মলা তুলে নিতে হু’মকিধামকি দিতে শুরু করে।

আইনজীবী সিতারা সালাম বলেন, ৭ দিনের জা’মিন নেয় আপসের কথা বলে। কিন্তু এখন পর্যন্ত তার কোনো আইনজীবী আপস করার চেষ্টা করেননি।

অ’ভিযুক্তের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। তবে তিনি যে আইনজীবীর চেম্বারে কাজ করে তিনি সময় সংবাদকে জানান, স্ত্রী ও স’ন্তানের ভরণপোষণের জন্য নিজেও রায়হানকে বেশ কয়েকবার অনুরোধ করেছেন।

আইনজীবী আমজাদ হোসেন বলেন, দ্বিতীয় বিয়ে করতে গেলে প্রথম স্ত্রীর অনুমতি নিতে হয়। সে তা নেয়নি। সে অবশ্যই অ’পরাধী।

আ’দালতে ন্যায়বিচার পাবেন ভু’ক্তভোগী মুক্তা। এমন আশাবাদও জানান এই আইনজীবী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here