শ্বা-শুড়ির স-ঙ্গে অ-নৈতি-ক স-ম্পর্ক জা-মাইয়ের !

0
54

অনৈ’তিক কা’র্যকলা’পে ম’ত্ত শাশুড়ি ও জামাই। নানির স’ঙ্গে বাবার এমন ক’র্মকা’ণ্ড দেখে মাকে জা’নিয়ে দেয় ছেলে। এরপর বি’চ্ছে’দ হয়ে যায় সম্প’র্কে। যুক্তরাষ্ট্রের টেনিসির এই ঘ’টনা এখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল। টিকটক ব্যব’হারকারী জিমি সম্প্রতি একাধিক ভিডিও প্রকাশ্যে এনে জানিয়েছেন, সদ্য তিনি জানতে পেরেছেন, তার স্বা’মীর স’ঙ্গে সম্প’র্কে জড়িয়ে পড়েছেন তারই মা, আর এই সম্প’র্কের কথা তাকে জানিয়েছে ছেলে।

ছেলেই একদিন বাবা আর নানিকে আ’পত্তি’কর অবস্থায় দেখে ফে’লে। আর তাতেই সব সত্যি জানতে পারেন জিমি। জিমি জানিয়েছেন, ঘ’টনার শুরু তার ৩৩ তম জ’ন্ম’দিনের দিন থেকে। সেদিন তার স্বা’মী স্বীকার করেন, একজন ম’হিলার স’ঙ্গে তার সম্প’র্ক তৈরি হ’য়েছে। তখনও তিনি সেই ম’হিলার পরিচয় জানাননি। সেই সময়ে দুঃ’খে বাড়ি ছে’ড়ে মায়ের কাছে চলে যান জি’মি। কিন্তু তিনি জানতেন না তার স্বা’মীর প্রে’মিকা আসলে তারই নিজের মা!

পরে তিনি জানতে পারেন, শেষ পাঁচ বছর ধরে তার মা আর স্বা’মী প্রে’ম করছেন। সেটা তাকে জানায় তার স’ন্তান, যার বর্তমান ব’য়স ২৫ বছর। কিন্তু তখন সে অনেক ছোট ছিল। এতদিন পর সেই বি’ষয়টি নিয়ে মুখ খুললেন জিমি। তিনি জানিয়েছেন, এক’দিন আমার ছে’লে ঘরে ঢু’কে পড়ে।

সেখানে আ’পত্তি’কর অবস্থায় দেখতে পায় আমার মা আর আমার স্বা’মীকে। সে এসে আমাকে স’বটা জানায়। আমি তখন বুঝতে পারি পাঁচ বছর ধরে আসলে আমার মায়ের স’ঙ্গেই সম্প’র্কে জ’ড়িয়ে আছেন আমার স্বা’মী। তখন আমি ভে’ঙে পড়ি। কিন্তু আমি আর্থিক স’মস্যার কারণে তখনও সম্প’র্ক ছে’ড়ে বেরিয়ে যেতে পারিনি।

জিমি বলেছেন, সেই সময়টা তার কাছে দুঃস্বপ্নের মতো ছিল। তারপর আ’র্থিকভাবে স’ক্ষম হয়ে তিনি পরিবার নিয়ে আলাদা হয়ে যান। টেনিসিতে নিজের বাড়ি তৈরি করে থাকতে শুরু করেন। তারপর ২০১৭ সালে তাদের মধ্যে বি’চ্ছে’দ সম্পূর্ণ হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here