হাসপাতালের সামনে স্ত্রীর লা’শ রেখে স্বা’মীর পলায়ন

0
135

চট্টগ্রামের আনোয়ারায় হাসপাতালে স্ত্রী সেলিনা আক্তার শেলীর লা’শ রেখে পালানোর অভিযোগ উঠেছে স্বা’মীর বি’রুদ্ধে। বুধবার ভোর ৫টার দিকে উপজে’লা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এ ঘ’টনা ঘটে। উপজে’লা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবু জাহিদ মোহাম্ম’দ সাইফউদ্দিন বি’ষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, ২২ বছরের শেলী চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজে’লার সাধ’নপুর গ্রামের জেবল হোসেনের মে’য়ে। শৈলীর স্বা’মী মোহাম্ম’দ শাকিব (২৮) কক্সবাজারের চকরিয়া উপজে’লার ডোমখালী মালুমঘাট এলাকার মোহাম্ম’দ নোমানের ছেলে।

তারা দুজনই কোরিয়ান ইপিজেডে চাকরি করতেন। সে সুবাদে দুজনের মধ্যে প্রেমের সম্প’র্ক গড়ে উঠলে ২০১৯ সালের জুন মাসে তাদের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে তারা আনোয়ারায় ভাড়া বাসায় থাকতেন। এটি সেলিনা আক্তার শেলীর দ্বিতীয় বিয়ে। তার আগের সংসারে আদনান হোসেন নামে ৪ বছরের এক ছেলে রয়েছে। ছেলেটি বাঁশখালী উপজে’লায় তার নানার বাড়িতে থাকে।

প্রতিবেশী হারুনুর রশিদ বলেন, সকালে কাজে না যাওয়াতে শেলীর স্বা’মী শাকিবকে ফোন দিই। ওই সময় শাকিব জানায়, তার স্ত্রী গ’লায় ফাঁ’স দিয়েছে। তিনি স্ত্রী’কে নিয়ে আনোয়ারা হাসপাতালে গেছেন। পরে খবরটি শেলীর ভাইকে জানালে তারা হাসপাতালে আসেন।

হাসপাতাল সূত্র জানায়, বুধবার ভোরে কে বা কারা জরুরি বিভাগের বাইরে ওই না’রীর লা’শ রেখে যায়। হাসপাতালের দায়িত্বে থাকা লোকজন ভোর ৫টার দিকে দরজা খুলে বের হলে লা’শটি দেখতে পান।

আনোয়ারা থানার ভারপ্রা’প্ত কর্মকর্তা (ওসি) দুলাল মাহমুদ বলেন, শৈলীর গ’লায় রশির দাগ রয়েছে। ম’য়নাত’দন্ত হলে এ বি’ষয়ে আরও জানা সম্ভব হবে। এ ঘ’টনায় এখন পর্যন্ত থানায় কোনো মা’মলা হয়নি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here